কল্যাণপার্টির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন

বাংলাদেশ কল্যাণপার্টির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বীরপ্রতিক বলেছেন, সরকার চেয়েছিল বিএনপিসহ ২০ দলীয় জোট নির্বাচনে না আসুক। কিন্তু তাদের সে ষড়যন্ত্র সফল হয়নি। ২০ দল নির্বাচনে আসায় সরকার এখন যেকোন উপায়ে নির্বাচন বানচাল করার অপচেষ্টা করছে। এজন্য তারা বাহানা খুঁজছে। নিজেরা অপরাধ করে ২০ দলের উপর চাপাচ্ছে। তাদের এ ষড়যন্ত্রও সফল হবে না। আমরা ভোটের দিন ভোর থেকে মাঠে থাকবো এবং ফলাফল নিয়েই বাড়ি ফিরবো।

kallyan_party2

কল্যাণ পার্টির ১১ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে গতকাল মহাখালির ডিওএইচএস এ দলীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। এ সময় জামায়াতে ইসলামীর নির্বাহী পরিষদ সদস্য মাওলানা আব্দুল হালিম, জাতীয় দলের চেয়ারম্যান এহসানুল হুদা, কল্যাণপার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমান, স্থায়ী কমিটির সদস্য ফোরকান ইব্রাহিম, ডা. ইকবাল হাসান মাহমুদ, কাহির মাহমুদ, সিনিয়র ভাইস-চেয়ারম্যান সাহিদুর রহমান তামান্না, ভাইস-চেয়ারম্যান মাহমুদ খান, যুগ্ম-মহাসচিব নুরুল কবির ভুইয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক রাশেদ ফেরদৌস ও আহসান হাবীব ইমরোজ, ঢাকা মহানগর সভাপতি আলী হোসেন ফরাজী, কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক আলামিন ভুইয়া রিপন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে অতিথিরা কেক কেটে কল্যাণপার্টির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করেন।

সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বলেন, রাজনীতির গুনগত মান পরিবর্তনের জন্য বাংলাদেশ কল্যাণপার্টি প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। এরপর থেকেই গত ১১ বছর ধরে আমরা ন্যায়ভিত্তিক সমাজ ও আলোকিত জাতি গঠনে কাজ করে যাচ্ছি। তিনি বলেন, কল্যাণপার্টি চায় একটি শক্তিশালী নির্বাচন কমিশন, যারা স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারবে। নির্বাচনে নির্বাহী ক্ষমতা দিয়ে সেনাবাহিনী মোতায়েন করার বিধান সরকার আইন পরিবর্তন করে বাতিল করেছে, আমরা এ আইন ফিরিয়ে নিয়ে আসবো। সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়স ৩৫ বছর এবং অবসরের বয়স ৬৫ বছর করা হবে বলেও তিনি জানান।

মাওলানা আব্দুল হালিম বলেন, দেশে রাজনীতিতে লেভেলে প্লেয়িং ফিল্ড নেই। সরকার বিরোধীদল বিহীন নির্বাচন করতে ষড়যন্ত্র করছে। এজন্য নেতাকর্মী গণগ্রেফতার এবং মনোনয়নপত্র বাতিল করা হচ্ছে। কিন্তু যতই ষড়যন্ত্র হোক, আমরা নির্বাচনে থাকবো। গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার ও বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য লড়াই চালিয়ে যাব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *